হজ্জে গমনের পূর্বে ভোজনানুষ্ঠানের ব্যবস্থা করা

সম্প্রতি একটা ফেতনা সমাজে খুব জোড়ে-সোরে চালু হয়ে যাচ্ছে, তাহলো মানুষ যখন হজ্জে যান, তখন তার পূর্বে নিজস্ব বাড়িতে একটা খুর বড় ধরনের খাই-দাইয়ের ব্যবস্থা করা হয়। সেখানে তার সকল আত্মীয়-স্বজনদেরকে হাজির করানো হয়। অনেক সময় আবার বলা হয় যে, হজ্জে যেয়ে যদি সে মারা যায়, তাহলে সকল আত্মীয় গন তাকে দেখত পাবেন না। তাই সকল আত্মীয়দেরকে এক সাথে করা হয়েছে। এর আসল উদ্দেশ্য হল এই লাকার সকল লোককে জানিয়ে দেয়া যে, অমুক ব্যক্তি হজ্জে যাচ্ছে অথবা এর পর থেকেই সে হাজী বা আলহাজ্জ উপাধি পাবে।

আমি আবার স্মরণ করিয়ে দিচ্ছি যে, কোন ব্যক্তি যদি দুনিয়াবি সম্মান লাভের জন্য কোন কার্যক্রম করে, তাহলে আল্লহ দুনিয়াতে সে ব্যক্তির সম্মান বাড়িয়ে দেন ঠিকই, কিন্তু সে ব্যক্তি আর পরকালে তার লোক দেখানো ইবাদতের কিছুই পাবে না। বিভিন্ন হাদিসে বিষদ ভাবে এই বিষয়টি বুঝানো হয়েছে। তারপরও যদি কেউ এই ধরনের কোন অনুষ্ঠানের আয়োজন করে, তাহলে সে কার্যক্রমের হিসাব সে ঢাক-ঢোল পেটানো হাজীকেই দিতে হবে। ইসলামে শুধুমাত্র দুই ঈদ ছাড়া আর কোন অনুষ্ঠান/উৎসব করার অধিকার কারো নেই। যদিও উত্তম বিষয়টি মহান আল্লহ রব্বুল আলামীনই ভাল জানেন, তারপরও এ বিষয়ে আরও অধিক জানার জন্য ইন্টারনেট মাধ্যমে নীচের ওয়েব সাইট ভিজিট করুন:

http://www.islamqa.com/en/ref/10225/bid’ah 

 

You may also like...